সাত দশকেরও বেশি সময় ব্রিটিশ সিংহাসনে আসীন থাকার পর গত ৮ সেপ্টম্বরে ৯৬ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ। এরপর গতকাল সোমবার সেন্ট জর্জেস চ্যাপেলের অভ্যন্তরে অবস্থিত রাজা ষষ্ঠ জর্জ মেমোরিয়াল চ্যাপেলে রানিকে তার প্রয়াত স্বামী ডিউক অব এডিনবরার সঙ্গে সমাহিত করা হয়েছে। এর আগে ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধানসহ ধর্মীয় নেতারা রানির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। সেখানে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রধানমন্ত্রী জো বাইডেন ও তার স্ত্রী জিল বাইডেন।

সেই ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে ব্রিটিনের নতুন রাজা তৃতীয় চার্লসের পেছনে ১৪ তম সারিতে বসেন বাইডেন ও তার স্ত্রী। আর এতেই নারাজ মার্কিন সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এই নিয়ে বাইডেনকে বিদ্রুপ করেছেন তিনি।

ট্রাম্প তার নিজস্ব সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ‘ট্রুথ সোশ্যাল’-এ দাবি করেছেন, বাইডেনের নেতৃত্বে আন্তর্জাতিক মঞ্চে যুক্তরাষ্ট্র সম্মান হারিয়েছে। ট্রুথ সোশ্যালে ট্রাম্প লিখেছেন, এই দুই বছরের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রে এই ঘটেছে, কোনো সম্মান নেই।

সাবেক মার্কিন এই প্রেসিডেন্ট আরও বলেছেন, আমি প্রেসিডেন্ট থাকলে তারা কখনোই আমাকে পেছনে বসাতো না এবং আমাদের দেশ এখনকার থেকে অনেক ভিন্ন অবস্থানে থাকতো।

তিনি লিখেন, রিয়েল এস্টেটে রাজনীতি ও জীবনের মতো জায়গায় অবস্থানই সবকিছু।

তবে ট্রাম্পের এমন উপহাস নিয়ে বাইডেন বা হোয়াইট হাউজের পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করা হয়নি।

Previous post রাশিয়া থেকে আরও যুদ্ধবিমান পাচ্ছে মিয়ানমার
Next post যুদ্ধ শেষ করতে আগ্রহী পুতিন: এরদোয়ান
Close