প্রথমে দুজনার পরিচয়, তার পর দীর্ঘ দিনের প্রেমের পর বিয়ের পিঁড়িতে বসা। প্রেমের টানে নূর আজিমা নামের মালয়েশিয়ার এক তরুণী কুমিল্লায় এসে তার প্রেমের বিজয় ঘটিয়েছেন। গত সোমবার (১১ জুলাই) ওই তরুণী বরুড়া উপজেলার শিলমুড়ি ইউনিয়নের দীঘল গ্রামে মালয়েশিয়ার পেনাং শহর থেকে ছুটে আসেন।

নানা আয়োজনে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন শিলমুড়ি ইউপি চেয়ারম্যান মো. ইসহাক। তিনি জানান, উপজেলার শিলমুড়ি ইউনিয়নের দীঘল গ্রামের মৃত নুরুল ইসলামের ছেলে সাইফুল ১০ বছর ধরে মালয়েশিয়ার পেনাং শহরে ব্যবসা করেন।

তিনি আরও জানান, ব্যবসার সুবাদে ওই শহরের বাসিন্দা নূর আজিমার সঙ্গে পরিচয় হয় সাইফুল ইসলামের। পরে দু’জনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সেই সম্পর্কের জেরে সোমবার সাইফুলের গ্রামের বাড়িতে ছুটে আসেন মালয়েশিয়ার ওই তরুণী।

মঙ্গলবার (১২ জুলাই) সন্ধ্যায় ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী উভয়ের সম্মতিতে বিয়ে হয় তাদের। বিয়ের আমন্ত্রিত লোকজনের চেয়ে কয়েকগুণ বেশি ছিল উৎসুকজনতা।

প্রেমিক সাইফুল বলেন, নূর আজিমা অত্যন্ত ভদ্র এবং মার্জিত চরিত্রের নারী। দীর্ঘ দিন তাকে কাছে থেকে দেখার সুযোগ হয়েছে। সে বিয়ের জন্য বলায় আমি বলেছি ‘তুমি বাংলাদেশে এসে আমার পরিবারের সঙ্গে কথা বলো। আমার পরিবার যদি রাজি হয় তবে আমি তোমাকে বিয়ে করব।’

‘আমার কথা শুনে সে বাংলাদেশে আসার সিদ্ধান্ত নেয়। পরে আমার পরিবার এবং তার পরিবারের সম্মতিতে আমরা বিয়ে করি। সে বাংলাদেশে থাকার আগ্রহ প্রকাশ করেছে।’ যোগ করেন সাইফুল।

Previous post কুয়েত প্রবাসী সাংবাদিক শরিফ মিজান আর নেই
Next post কানাডায় সড়কে প্রাণ গেল বাংলাদেশি যুবকের
Close