নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলায় এক সৌদি প্রবাসীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছে। উপজেলার ৯ নম্বর নবীপুর ইউনিয়নে গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় তাৎক্ষণিকভাবে অভিযান চালিয়ে তিন জনকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত ব্যক্তির নাম মো. ইউসুফ (৩২)। তিনি উপজেলার ৯ নম্বর নবীপুর ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বিষ্ণপুর গ্রামের চোর্বাবাড়ির শরীয়ত উল্যার ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা বলছেন, ইউসুফ সৌদি প্রবাসী। সম্পত্তি নিয়ে তাঁর চাচাতো ভাইদের সঙ্গে তাঁদের পরিবারের দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছিল। এ নিয়ে বাগ্‌বিতণ্ডা লেগেই থাকত। এর মধ্যে গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে বিরোধপূর্ণ জায়গা থেকে আম পাড়াকে কেন্দ্র করে চাচাতো ভাই সোহেল, রুবেল ও চাচা নুরনবীর সঙ্গে ইউসুফের কথাকাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে ক্ষুব্ধ হয়ে ইউসুফকে মারধর করেন সোহেল ও রুবেল। একপর্যায়ে তাঁকে ছুরিকাঘাত করা হয়।

পরে স্বজনেরা ইউসুফকে উদ্ধার করে নোয়াখালী ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসক দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে সেনবাগ থানা পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সেনবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইকবাল হোসেন পাটোয়ারী বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে জানা যায়, বিরোধপূর্ণ জায়গা থেকে আম পাড়াকে কেন্দ্র করে প্রবাসীকে ছুরিকাঘাতে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। মরদেহ নোয়াখালী ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা আছে। আজ শুক্রবার সকালে ময়নাতদন্ত শেষে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

ওসি আরও জানান, এ ঘটনায় তিন জনকে আটক করা হয়েছে। যাচাই-বাছাই করে আটক ব্যক্তিদের ব্যাপারে পরে জানানো হবে।