ক‍্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগ, লস এঞ্জেলেস বিশাল আয়োজনের মাধ্যমে বাংলাদেশের ৫১তম মহান স্বাধীনতা দিবস উদযাপন করেছে।

গত ২৬শে মার্চ শনিবার শহরের ৪৮১০ সানসেট বেলিভ স্ট্রেট এ অবস্হিত চার্চ অফ সাইন্টলোজী প্রাঙ্গনে এ অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।

উৎসবের মূল কার্যক্রম শুরু হয় দুপুর ২টায়। ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের নির্দেশক্রমে দলের প্রচার সম্পাদক শামসুল আরিফীন বাবলু অনুষ্ঠান পরিচালনার জন্য আহ্বান জানান ক‍্যালিফর্নিয়া স্টেট যুবলীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক শম্পা চৌধুরী ও আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির সদস‍্য আসজাদি রশীদ সিমিকে।

তারা মনোমুগ্ধকর অনুষ্ঠানকে দুটি পর্বে সাজিয়ে অত্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবে পরিচালনা করেন।

প্রথমেই পবিত্র ধর্মগ্রন্হ কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন সংগঠনের প্রচার সম্পাদক শামসুল আরিফীন বাবলু এবং ত্রিপিঠক পাঠ করেন দফতর সম্পাদক অসিতী বড়ুয়া।

এরপরই সবাই মিলে জাতীয় সংগীত গেয়ে নিহত বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সকল নিহত শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে ১ মিনিট নীরবতা পালন করা হয়।

 

পরে প্রথম পর্বে শিশু কিশোরদের অংশগ্রহণে চিত্রাঙ্কন, নৃত্য ও ছড়া প্রতিযোগিতা। দ্বিতীয় পর্বে সংগঠনের বিভিন্ন নেতৃবৃন্দ এবং অথিবৃন্দরাও কবিতা আবৃত্তি ও গানে গানে মাতিয়ে রাখেন।

ক্যালিফর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক প্রতিযোগী শিশু কিশোরদের হাতে সার্টিফিকেট, গিফ্ট কার্ড এবং বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের ছবি তুলে দেন। শিশু কিশোররা তাতে খুব উল্লাস প্রকাশ করে।

স্বাধীনতা মেলায় সব ধরনের দেশীয় খাবারের স্টল, জুয়েলারি, কপড় ও বুক স্টল ছিল চোখে পড়ার মত।

সন্ধ‍্যার পরপরই অথিতি শিল্পীদের গান শুরু হয়। বিশেষ করে সোনিয়া খুকু, গৌরব গল্প এবং স্বাধীনতা মেলার মূল আকর্ষণ বাংলাদেশ থেকে আমন্ত্রিত শিল্পী ফাহমিদা নবীর সুরেলা কন্ঠে একের পর গান চলতে থাকে রাত ১০টা পর্যন্ত।

অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে ক‍্যালিফর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের সভাপতি শফিকুর রহমান সংগঠনকে আরো ব‍েগবান করার লক্ষ্যে কমিটিতে বেশকিছু নতুন নেতৃত্ববৃন্দকে পরিচয় করিয়ে দেন।

অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে শিশু কিশোরদের সংগঠক শিশু কিশোর মেলা লস এঞ্জেলেসের সমন্বয়ক মিসেস সালমা আলম মঞ্চে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

ক‍্যালিফর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাক্তার রবি আলম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দিদার আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক টি জাহান কাজল, উপদেষ্টা ফিরোজ আলম, বাণিজ্য সম্পাদক পণির চৌধুরী এবং মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি মাহতাব উদ্দিন টিপু উনাদের পরিশ্রম আর দিকনির্দেশনায় স্বাধীনতা মেলা অত্যন্ত উৎসবমুখর ও ফলপ্রসূ হয়ে উঠে।
প্রবাস বাংলার সংবাদদাতা, সামছুল আরেফিন বাবলু

Previous post আবারও হল বাফলা’র ‘বাংলাদেশ ডে প্যারেড’
Next post ইউক্রেন নিয়ে ভুল পথে বাইডেন: সমীক্ষা
Close