যুদ্ধ-সংঘাতের মধ্যেই ইউক্রেনে কমপক্ষে পাঁচ হাজার শিশুর জন্ম হয়েছে। জাতিসংঘের শিশুবিষয়ক সংস্থার একজন মুখপাত্র এ তথ্য জানান। আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

তিনি বলেন, যুদ্ধবিধ্বস্ত ইউক্রেনে জন্ম নেওয়া প্রত্যেকটি শিশুর আলাদা গল্প রয়েছে। এসব শিশুদের জীবন এখন অন্ধকারে নিমজ্জিত হয়েছে। কারণ তাদের পরিবারগুলো প্রায় ছিন্নবিচ্ছিন্ন। এসব শিশুদের জরুরিভিত্তিতে শান্তি প্রয়োজন বলেও জানান তিনি।

এদিকে রাশিয়ার দখল করে নেওয়া ইউক্রেনের মারিওপোল শহরের একটি থিয়েটার হলে আশ্রয় নেওয়া বেসামরিক নাগরিকদের ওপর রাশিয়া বিমান হামলা করেছে বলে অভিযোগ তুলেছে ইউক্রেন। তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে রাশিয়া।

আল জাজিরার খবরে বলা হয়, মারিওপোল সিটি কাউন্সিল জানিয়েছে, থিয়েটার হলে বোমা হামলায় ঠিক কত জন হতাহত হয়েছেন এখন পর্যন্ত সে সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি। হামলা থেকে বাঁচতে থিয়েটার হলে এক হাজারের বেশি মানুষ আশ্রয় নিয়েছিলেন।

এ ঘটনার পর পুতিনকে যুদ্ধাপরাধী বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এ মন্তব্যের কড়া প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে রাশিয়া।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের নির্দেশে গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেন আক্রমণ করে রুশ বাহিনী। গত ২০ দিনে তাদের হামলায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে ইউক্রেনের বিভিন্ন শহর। প্রাণ হারিয়েছেন কয়েকশ বেসামরিক নাগরিক। জাতিসংঘ জানিয়েছে, রুশ আক্রমণের মুখে এরই মধ্যে ৩০ লাখের বেশি মানুষ ইউক্রেন ছেড়ে পালিয়েছেন।

Previous post লেবাননে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী উদযাপন
Next post লিসবনে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন
Close