২০১৯ সালের নভেম্বরে মালয়েশিয়ান প্রোডাক্টস যাত্রা শুরু করে। অনেক চড়াই-উতরাই পেরিয়ে এরই মধ্যে পেজটি একটি ভালো একটি অবস্থানে পৌঁছায়। এটি ফেসবুকভিত্তিক অনলাইন পেইজ। যেখান থেকে খুব সহজে নামিদামি সব পণ্য চাইলেই ঘরে বসেই সরাসরি মালয়েশিয়া থেকে ক্রয় করতে পারেন।

বাংলাদেশের বনশ্রীতে এদের রয়েছে একটি লোকাল অফিস। যেখান থেকে সরাসরি পণ্য রিসিভ করতে পারেন দেশের ক্রেতারা। এছাড়াও রয়েছে নিজস্ব ডেলিভারি সার্ভিস। যার মাধ্যমে বাসায় বসেই পণ্য পান অনেকে।
GUCCI, LOUIS VUITTON, FERRAGAMO, VERSACE, HABIB, MALABAR,ALDO, GUESS, DIOR, CHANNEL, ADIDAS, NIKE, ZARA, LACOSTE, MICHAEL KORS এর মত নামী- দামী ব্যান্ডের ব্যাগ, জুতা, মোবাইলসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় যেকোনো মালয়েশিয়ান পণ্য গুলো পেজ এ অর্ডার করেই পাওয়া যায় খুব সহজে।

বিগত বছরের ন্যায় এবারও গত মঙ্গলবার কুয়ালালামপুরের নিজস্ব অফিসে অনুষ্ঠিত হয় প্রতিষ্ঠানটির বার্ষিক ডিনার পার্টি। এসময় উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানের কর্ণধার মোহাম্মদ ওমর ফারুক, হেড অফ মার্কেটিং ফারিয়া, অ্যাকাউন্ট অ্যাডমিনিস্ট্রেটর ফারিহা ওয়াহিদ, সিনিয়র এক্সিকিউটিভ সাইমনসহ মালয়েশিয়ার বিভিন্ন পেশার লোকজন। অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রাজ, সানজিদা, ফারিতা, দিলসাদ, সন্ধ‍্যা, মিথিলা, কাইসার, সহ আরো অনেকে।

এছাড়া অনুষ্ঠানটিকে প্রাণবন্ত করে তুলতে অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন রিয়াদ এবং রনি।

একই দিনে মালয়েশিয়ান প্রোডাক্টস গালানাইট ২০২১ প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত হয় বাংলাদেশ সময় রাত এগারোটায়। এটি ছিল একটি অনলাইন ভিত্তিক লাইভ ইভেন্ট, যেখানে গত ৩ আগস্ট থেকে ২৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত যে সকল ক্রেতা এই পেইজের মাধ্যমে কেনাকাটা করেছেন তাদেরকে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে পুরস্কৃত করা হয়।

পুরস্কার এর মধ্যে ছিল ঢাকা-দুবাই-ঢাকা, ঢাকা-কক্সবাজার-ঢাকা এয়ার টিকেট এবং ওয়েস্টিন ঢাকায় এক রাত থাকাসহ পাঁচজন কাপল জিতে নিয়েছেন বুফেট ডিনার। এছাড়াও দশটি ক্যাটাগরি শপার অফ দা ইয়ার, ডেভিউ শপার মেইল এবং ফিমেল, ক্লিন এন্ড ক্লিয়ার, দ্যা পারসিসটেন্ট, সু মেনিয়াক, টপ এঙ্গেজমেন্ট, এফএনএফ শপার, টপ জুয়েলারি শপার, সাইলেন্ট সুজি, শপার অফ দা ইয়ার পুরস্কারে পুরস্কৃত করা হয় ৩৪ জনকে।

তিন ঘণ্টার প্রাণবন্ত লাইভ প্রোগ্রামটি শেষ হয় রাত ১টায়। প্রোগ্রামটি উপস্থাপনা করেছেন হেড অফ মার্কেটিং ফারিয়া এবং সহ- উপস্থাপক হিসেবে ছিলেন প্রতিষ্ঠানের কর্ণধার মোহাম্মদ ওমর ফারুক। পরিশেষে আবারও নতুন কিছু প্রমোশনের ইঙ্গিত দিয়ে মালয়েশিয়ান প্রোডাক্ট গালানাইট ২০২১ এর সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।