অভিবাসন আইন, অবৈধ অভিবাসীদের বৈধতা ও অপেক্ষমাণ বিদেশি নাগরিকদের নানাবিধ সমঅধিকারের আন্দোলনের দাবি আদায়ে রাজপথে নেমেছে পর্তুগালে অভিবাসীদের সংগঠনগুলো। রোববার স্থানীয় সময় বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে রাজধানী লিসবন এবং বন্দর নগরী পর্তুতে মানবাধিকার সংগঠনগুলির ডাকে সাড়া দিয়ে এ আন্দোলনে যোগ দিয়েছেন বাংলাদেশিরাও। ন্যায্য দাবি আদায়ের লক্ষ্যে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছেন তারা।

আন্দোলনে উল্লেখ্যযোগ্য মৌলিক দাবিগুলোর মধ্যে বিদেশি ও সীমান্ত পরিষেবা (এসইএফ) কার্যক্রমের উন্নতি, চাকরি ঝুঁকিতে আছে এমন ব্যক্তিদের চাকরি নিশ্চিত করা, নতুন অভিবাসী যারা রেসিডেন্স কার্ডের জন্যে আবেদন করেছেন তাদের এসইএফ এ সাক্ষাৎকারের তারিখ ধারাবাহিকভাবে ইমেইলে সংযুক্ত করা, ইমেইল আসার সময়সীমা কমিয়ে আনা, ইমেইল পাওয়ার তারিখ থেকে ৫ বছরের মধ্যে পাসপোর্ট পাওয়ার সময় নির্ধারণ করা এবং সর্বেশেষ স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতের লক্ষ্যে সকল অভিবাসীর SNS নাম্বার প্রদান করা।

আন্দোলন নিয়ে বাংলাদেশি প্রবাসি মোহাম্মদ শাহাজান বলেন, আমরা বাংলাদেশিরা বিক্ষোভ মিছিলে অংশগ্রহণ করে বিদেশি অভিবাসী এবং মানবাধিকার সংগঠনগুলির সাথে একাত্বতা পোষণ করেছি। কারণ, আমরা জানি সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় আমরা আমাদের অধিকার ফিরে পাবো। আশা করি এ আন্দোলন পর্তুগালের গণমাধ্যমগুলোতে জোরালোভাবে প্রকাশ পাবে। এতে করে আমরা আমাদের ন্যায্য অধিকার ফিরে পাবো।