প্রায় দুই মাস বিরতির পর লেবানন থেকে আবারো ফিরতে শুরু করেছে অবৈধ হয়ে পড়া প্রবাসী বাংলাদেশি কর্মীরা। বাংলাদেশ দূতাবাসের স্বেচ্ছায় দেশে ফেরার কর্মসূচির আওতায় আগামীকাল মঙ্গলবার বাংলাদেশ বিমানের বিশেষ ফ্লাইটে ফিরছেন আরও ৪১৭ জন বাংলাদেশি।

স্থানীয় সময় দুপুর ২টায় দেশটির শহীদ রফিক হারিরি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ফ্লাইটটি ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা দেবে।

সোমবার রাজধানী বৈরুতের আল আনসার স্টেডিয়ামে তাদের সবার হাতে বিমান টিকিট তুলে দেয় বাংলাদেশ দূতাবাস। এসময় রাষ্ট্রদূত মেজর জেনারেল জাহাঙ্গীর আল মুস্তাহিদুর রহমান পিএসসি ও শ্রম সচিব আব্দুল্লাহ আল মামুন উপস্থিত ছিলেন।

টিকিট হাতে পেয়ে উৎফুল্ল বাংলাদেশিরা, জেল জরিমানা ছাড়া স্বল্প সময়ে নিজ দেশে ফিরতে পেরে লেবানন সরকার ও বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

দূতাবাস জানায় বাংলাদেশ দূতাবাসের স্বেচ্ছায় দেশে ফেরার কর্মসূচির আওতায় প্রায় ৭ হাজারেরও বেশি অবৈধ বাংলাদেশি দূতাবাসে স্বেচ্ছায় নাম নিবন্ধন করেন। তাদের মধ্যে গত ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া বাংলাদেশ বিমানের ১৬টি বিশেষ ফ্লাইটে এখন পর্যন্ত প্রায় ৬ হাজারেরও বেশি বাংলাদেশি নিজ দেশে ফিরতে পেরেছেন।

করোনায় দীর্ঘমেয়াদী লকডাউন, রাজনৈতিক অস্থিরতা ও ডলারের অস্বাভাবিক দাম বৃদ্ধি ও নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের লাগামহীন দাম বাড়ার কারণে দেশটিতে প্রবাসী বাংলাদেশিরা চরম আর্থিক সংকটে মানবেতর জীবনযাপন করছে।

অর্থ সংকটে থাকা বাংলাদেশিরা আরও জানায়, হাতে পর্যাপ্ত অর্থ না থাকার কারণে বিমানের টিকিটের ৪০০ মার্কিন ডলার অনেক কষ্টে পরিশোধ করতে হয়েছে। দেশ থেকে ধার দেনা করে অর্থ যোগাড় করতে হয়েছে।