নাহিদ হাসান রুবেল :

ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট যুবলীগের আয়োজনে যুক্তরাষ্ট্রের পর্যটন নগরী লস এঞ্জেলেসের বলিউড ইন্ডিয়ান রেস্তরাঁয় গত ১১ নভেম্বর সন্ধ্যায় জাঁকজমক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৭ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকি উদযাপন করা হয়।স্বাধীনতা পরবর্তী রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট বিবেচনায় ১৯৭২ সালের ১১ নভেম্বর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর নির্দেশে যুব সমাজকে ঐক্যবদ্ধ করতে যুব সমাজের অহংকার যুবনেতা শহীদ শেখ ফজলুল হক মনি বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রতিষ্ঠা করেন। ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আজিজ মোহাম্মদ হাই এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথী ছিলেন স্টেট আওয়ামী লীগের সম্মানিত সভাপতি শফিকুর রহমান শফিক।প্রধান বক্তা ছিলেন স্টেট আওয়ামী লীগের সংগ্রামী সাধারণ সম্পাদক ড.রবি আলম।বিশেষ বক্তা ছিলেন স্টেট যুবলীগের সাধারন সম্পাদক সোহেল ইসলাম। স্টেট যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আফরোজ আলম জয় ও যুবলীগ নেত্রী জেসমিন সুলতানা শম্পার সঞ্চালনায় আলোচনা সভার শুরুতেই পবিত্র কুরআন থেকে পাঠ করেন শামসুল আরেফিন বাবলু।বাংলাদেশের জাতীয় পতাকার প্রতি সন্মান প্রদশর্নে সমবেত সুরে জাতীয় সংগীত গাওয়া হয়।সেই সাথে ১৯৫২”র”ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে ১৯৭১”র মহান মুক্তিযুদ্ধ এবং অদ্যাবধি যে সকল বীর বাঙ্গালী বিভিন্ন আন্দোলন ও সংগ্রামে দেশের জন্য শহীদ হয়েছেন তাদের আত্মার প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শন করা হয়।গভীর শ্রদ্ধায় স্মরণ করা হয় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান সহ তার পরিবারের যে সকল সদস্য ১৫ আগষ্ট ১৯৭৫”র” কালো রাত্রিতে নির্মম হত্যাকাণ্ডের শিকার হন।স্মরণ করা হয় জেলখানায় বন্দী জাতীয় চার নেতা,একুশ আগষ্টের গ্রেনেড হামলা সহ রাজনৈতিক প্রতিহিংসায় শাহাদত বরনকারী সকল পর্যায়ের আওয়ামী নেতা কর্মিদেরকে।শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করা হয় যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শহীদ শেখ ফজলুল হক মনিকেও। আলোচনা পর্বের শুরুতেই শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট যুবলীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক নাহিদ হাসান রুবেল।বক্তব্য রাখেন স্টেট যুবলীগের সাধারন সম্পাদক সোহেল ইসলাম।আরে বক্তব্য রাখেন স্টেট আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নাজমুল চৌধুরী,শামীম হোসেন,সাংগাঠনিক সম্পাদক আলী আহম্মেদ ফারিস ও টি জাহান কাজল,সাধারণ সম্পাদক ড.রবি আলম,সভাপতি শফিকুর রহমান,সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও স্টেট আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা ফিরোজ আলম,আওয়ামী লীগ কর্মি অসিতি বড়ুয়া। স্টেট আওয়ামী লীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক টি জাহান কাজল বলেন স্টেট যুবলীগ কর্তৃক আয়োজিত আজকের এই অনুষ্টান সফল ও স্বার্থক।আজিজ মোহাম্মদ হাই ও সোহেল ইসলামের নেতৃত্বের যুবলীগ ইতিমধ্যে নিজেদেরকে প্রমান করেছেন তাদের সাংগাঠনিক দক্ষতার মধ্যে দিয়ে।স্টেট যুবলীগের সকল নেতা কর্মি বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রাণিত নিবেদিত প্রাণ।স্টেট আওয়ামী লীগ কর্তৃক একমাত্র পরিক্ষীত ও স্বীকৃত যুবলীগ।বঙ্গবন্ধু কন্যা ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা যেমনটি আওয়ামী অঙ্গসংগঠ ও সহযোগী সংগঠনের সাংগাঠনিক নেত্রী এবং সংগঠনগুলির দেখভাল করে থাকেন তেমনটি সংগঠনগুলির নেত্রীবৃন্দের শেখ হাসিনার নির্দেশনার বাইরে যাওয়ার সুযোগ নেই বললেই চলে।আমিও বলতে চাই শেখ হাসিনার নির্দেশে আমরা যারা ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী লীগের প্রতিনিধিত্ব করি ক্যালিফোর্নিয়া স্টেট আওয়ামী সহযোগী সংগঠনগুলির স্টেট আওয়ামী লীগকে অমান্য করার সুযোগ নাই।যারা স্টেট আওয়ামী লীগকে অমান্য করে তারা শেখ হাসিনার নির্দেশনাকে অমান্য করে।তারা কখনই বঙ্গবন্ধুর প্রকৃত সৈনিক হতে পারে না।তিনি আরো বলেন আমি অনুরোধ করব লস এঞ্জেলেসে যারা যুবলীগ করতে চায় ছত্র ভঙ্গ হয়ে না থেকে আজিজ মোহাম্মদ হাই ও সোহেল ইসলামের নেতৃত্বের ছায়াতলে দাড়াতে।স্টেট আওয়ামী লীগ সভাপতি শফিকুর রহমান প্রধান অতিথীর বক্তব্যে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান স্টেট যুবলীগের সকল নেত্রীবৃন্দকে সুন্দর ও স্বার্থক অনুষ্টান আয়োজনের জন্য।

সমাপনী বক্তব্যে স্টেট যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আজিজ মোহাম্মদ হাই উপস্হিত আওয়ামী লীগ ও যুবলীগের সকল স্তরের নেত্রীবৃন্দকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য। নৈশভোজে আমন্ত্রণ জানিয়ে আলোচনা ইতি টানা হয়। উল্লেখযোগ্য নেত্রীবৃন্দের মধ্যে উপস্হিত ছিলেন স্টেট আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক দিদার হোসেন,কাজল হোসেন,শ্রম বিষয়ক সম্পাদক ফরহাদ হোসেন,সাবেক সভাপতি হাবিব আহম্মেদ টীয়া,সাবেক নেত্রী নুরন্নাহার জাহান,বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক শামসুর চৌধুরী পনির,ফয়েজ উদ্দিন,হেলাল উদ্দিন,জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।সাংবাদিকদের মধ্যে উপস্হিত ছিলেন লিটল বাংলাদেশ প্রেস ক্লাব সভাপতি কাজী মশরুল হুদা ও সাধারণ সম্পাদক লস্কর আল মামুন,এল.এ.বাংলা টাইমস এর প্রধান আব্দুস সামাদ।

অনুষ্ঠানের আকর্ষণীয় দিক ছিলো স্টেট আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে বর্তমান যেসকল নেত্রীবৃন্দ প্রবাসের মাটিতে বসেও বঙ্গবন্ধুকে ধারণ করে আওয়ামী লীগ তথা শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে কাজ করে গেছেন এবং যাচ্ছেন তাদের স্বীকৃতিস্বরুপ সম্মানজনক ক্রেস্ট উপহার দেয়া হয়।যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ঘোষনা দেন এখন থেকে প্রত্যেক বছরই যুবলীগের পক্ষ থেকে পর্যায়ক্রমে সম্মানিত করা হবে স্টেট আওয়ামী লীগের বর্তমান ও সাবেক নেত্রীবৃন্দকে। বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৭ তম জন্মদিনে কেক কাটেন উপস্হিত ছোট্ট সোনা মনিরা।সাংস্কৃতিক পর্বে সংগীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে উপস্হিত দর্শকদের মাতিয়ে রাখেন নাহিদ হাসান রুবেল ও লস এঞ্জেলেসের জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী আরজিন কামাল।উল্লেখ্য নৈশভোজের পর আমন্ত্রিত সকল অতিথীবৃন্দ প্রশংসা জানান বলিউড ইন্ডিয়ান রেস্তরাঁ কর্তৃপক্ষকে সুস্বাদু খাবাররবরাহ করার জন্য সেই সাথে আয়োজক বৃন্দকেও ধন্যবাদ জানান আমন্ত্রণ জানানোর জন্য।