আবারও উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে ভারত-চীন সম্পর্ক। ডোকালামে নির্মাণকার্য নিয়ে বিতর্কের পর এবার তিব্বতে শক্তি প্রদর্শন শুরু করেছে চীন। সূত্রের খবর, চীন এখানে ফাইটার জেট এবং নৌবাহিনীর যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করেছে।

তিব্বতে শুধু চীনা সেনাই নয়, এর আগে পিএলএ-র বিমানবাহিনী এবং নৌবাহিনীও তার শক্তি প্রদর্শন করেছে। গত বছরের তুলনায় চলতি বছরে চীন তিব্বতে ফাইটার জেটের সংখ্যা ২০শতাংশ বাড়িয়ে দিয়েছে বলে জানা গেছে।

একটি ইংরাজি সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, গত তিন সপ্তাহে ফাইটার জেটের সংখ্যা ৪৭ থেকে প্রায় ৫১ করে দেওয়া হয়েছে। গত বছরের তুলনায় যা সংখ্যায় ১০টি বেশি। লাসা-গোংকাতে চীন মোতায়েন করেছে ৮টি ফাইটার জেট। এছাড়া রয়েছে এয়ার মিসাইলসহ ২২টি এমএই-১৭টি হেলিকপ্টার সহ অন্যান্য অস্ত্রও।

অন্যদিকে, হোপিং-রিকাজেতে রয়েছে চীনা বিমান বাহিনী ১৮ এয়ারক্র্যাফ্টসহ আরও বহু কিছু। এখানেই শেষ নয়, তিব্বতে ভারত সীমান্তে, এয়ার মিসাইলও চীন মোতায়েন করেছে বলে জানা গেছে। এভাবেই চীন তিব্বতে তার শক্তি প্রদর্শনের কাজে নেমে পড়েছে, যা ভারতের পক্ষে দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে উঠতে পারে বলে একাংশের মত।