এ বছর নোবেল শান্তি পুরস্কারের জন্য মনোনয়ন পেয়েছ্নে বাংলাদেশি আমেরিকান অধ্যাপক ডা. রুহুল আবিদ। নিজের অলাভজনক সংস্থা হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফর অল’র (এইচএইএফএ) সঙ্গে যৌথভাবে তিনি এ মনোনয়ন পেয়েছেন। হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফর অল বাংলাদেশে সুবিধাবঞ্চিতদের স্বাস্থ্যসেবা দিয়ে থাকে। মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থী, গার্মেন্ট কর্মী, রিকশাচালকসহ প্রান্তিক মানুষদের স্বাস্থ্যসেবা দিয়েছে হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফর অল। করোনাভাইরাসের সঙ্কটে ব্যক্তিগত সুরক্ষা সরঞ্জাম বিতরণ ও প্রশিক্ষণ দিয়েছে তার সংস্থা। এছাড়া ঘূর্ণিঝড় আম্ফানের ক্ষতিগ্রস্ত মানুষেরও সেবা দিয়েছে হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফর অল বাংলাদেশ।

অধ্যাপক ডা. রুহুল আবিদ ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে স্নাতক শেষে জাপানের নাগোয়া বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মলিক্যুলার বায়োলজি অ্যান্ড বায়োকেমিস্টিতে পিএইচডি করেন। ২০০১ সালে তিনি হার্ভাড মেডিকেল স্কুল থেকে ফেলোশিপ করেন। অধ্যাপক ডা. রুহুল আবিদ ব্রাউন গ্লোবাল হেলথ ইনিশিয়েটিভের নির্বাহী ফ্যাকাল্টি মেম্বার।

যুক্তরাষ্ট্রে ব্রাউন ইউনিভার্সিটি আলপার্ট মেডিকেল স্কুলের বাংলাদেশি আমেরিকান অধ্যাপক ডা. রুহুল আবিদ এবং তার অলাভজনক সংস্থা হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফর অল’কে নোবেল শান্তি পুরস্কারের জন্য মনোনয়ন দিয়েছে ইউনিভার্সিটি অব ম্যাসাচুসেটস বস্টন। ইউনিভার্সিটি অব ম্যাসাচুসেটস বস্টনের নৃবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক জ্যঁ ফিলিপে বিলিউ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের নোবেল শান্তি পুরস্কারের জন্য আবিদসহ মোট ২১১ জন মনোনয়ন পেয়েছেন।