অমর একুশের প্রথম প্রহরে বর্ণমালার সৈনিকদের অবদান ও সংগ্রামের দিনগুলোকে স্মরণ করে গভীর মমতায় দক্ষিণ কোরিয়ার আনসান শহরের শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা জানাল দক্ষিণ কোরিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলাম।

মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রথম প্রহরে দক্ষিণ কোরিয়ার আনসান শহরে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে ভাষাশহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন সিউলস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলাম ও দূতাবাস পরিবার।

প্রথম প্রহরে শহীদ মিনারে দূতাবাসের পুস্প অর্পণের পর, শহীদ মিনারে কোরিয়ার বাংলাদেশি নানা সংগঠন পুস্প অর্পণ করেন, কোরিয়ার আনসানে বাংলাদেশি প্রবাসী মানুষের ঢল নামে,পাশাপাশি কিছুসংখ্যক কোরিয়ানও পুস্প অর্পণ করেন।

রাত ১২টা ১ মিনিটে প্রথমে রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলামের নেতৃত্বে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন দূতাবাসের কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ। এ সময় সবাই সমস্বরে অমর একুশের কালজয়ী গান, ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি…’। ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর রাষ্ট্রদূতসহ সকলে কিছুক্ষণ নীরবে দাঁড়িয়ে থেকে ভাষা আন্দোলনের শহীদদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানান।

এছাড়া মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে সিউলস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস বিভিন্ন কর্মসুচী গ্রহণ করেছে। কর্মসূচীর অংশ হিসেবে সকাল ১০ টায় রয়েছে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ, দিবস উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ও সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত বাণী পাঠ ও দিবসের তাৎপর্যের উপর আলোচনা পর্ব।

বিকেলে বাংলাদেশ দূতাবাস ও কোরিয়ান ন্যাশনাল কমিশন ফর ইউনেস্কো এর যৌথ আয়োজনে কোরিয়ান ন্যাশনাল কমিশন ফর ইউনেস্কো-এর অডিটোরিয়ামে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত ও অতিথিগণেরর অংশগ্রহণে আলোচনা অনুষ্ঠান ও বিভিন্ন দেশের শিল্পীদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত ও কূটনৈতিক গণ, দক্ষিণ কোরিয়ার বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধিগণ এবং বাংলাদেশি কমিউনিটির সদস্যগণ উপস্থিত থাকবেন।